বাবার স্বপ্ন ছিল ছেলে একদিন খেলবেন ভারতের সাদা জার্সিতে। সেই পূরণ করতে ছেলে এসেছিলেন অস্ট্রেলিয়ায়। সফরকালেই যার স্বপ্ন পূরণ করবেন সেই মানুষটা চলে গেলেন না ফেরার দেশে। শেষবার দেখা হলোনা বাবাকে।

blank
blank
blank
blank
blank
blank
blank

বাবার স্বপ্ন পূরণে অস্ট্রেলিয়াতেই থেকে গেলেন। অবশেষে মিললো সুযোগ। আর শোককে শক্তিতে পরিণত করে অভিষেক ম্যাচে খেলতে নেমেই গড়লেন রেকর্ড।

কার কথা বলা হচ্ছে নিশ্চয় এতক্ষণ বুঝে গেছেন। ভারতীয় পেসার মোহাম্মদ সিরাজ, নিজের অভিষেক ম্যাচে দারুণ বোলিংয়ে পাঁচ উইকেট শিকার করে রেকর্ড গড়েছেন। যা উৎসর্গ করেছেন কদিন আগে পরপারে পাড়ি জমানো বাবাকে।

blank
blank
blank
blank
blank
blank
blank

প্রথম ইনিংসে ২ উইকেট শিকারের পর, অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে দ্বিতীয় ইনিংসে সিরাজ ৩৭ রান খরচ করে ৩টি উইকেট পেয়েছেন। তৃতীয় দিন হেডকে আউট করার পর আজ চতুর্থ দিনে সিরাজ আরও ২টি উইকেট পান।

ফলে সব মিলিয়ে ৭৭ রান খরচ করে ম্যাচ থেকে সিরাজের শিকার ৫ উইকেট। সিরাজের দুরন্ত বোলিংয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে অস্ট্রেলিয়াকে ২০০ রানে অলআউট করে ভারত।

বল হাতে এমন পারফর্ম্যান্সে ১৬ বছরের পর নতুন নজির গড়লেন সিরাজ। শেষবার ২০০৪ সালে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট অভিষেকে সফরকারী কোনও বোলার ৫ উইকেট শিকার করেছিলেন।

blank
blank
blank
blank
blank
blank
blank

অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে সেবার শ্রীলঙ্কার হয়ে টেস্ট অভিষেকে লাসিথ মালিঙ্গা পাঁচের বেশি উইকেট পান (৬টি উইকেট)। সেই নজিরের পর ১৬ বছর কাটিয়ে অজিভূমে টেস্ট অভিষেকে সফরকারী বোলার হিসেবে মহম্মদ সিরাজ ৫ উইকেট পেলেন।

সব মিলিয়ে সিরাজ পঞ্চাশ বছরে চতুর্থ সফরকারী বোলার যিনি অজিভূমে টেস্ট অভিষেকে পাঁচ উইকেট নিয়ে পাঁচদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পা রাখলেন।

blank
blank
blank
blank
blank
blank
blank

৫০ বছরে ইংল্যান্ডের ফিল ডেফ্রেইটাস (৮৬-৮৭ মরসুমে ৯৪/৫), ইংল্যান্ডের অ্যালেক্স টুডর (৯৮-৯৯ মরসুমে ১০৮-৫), শ্রীলঙ্কার লাসিথ মালিঙ্গা (২০০৪ সালে, ৯২/৬), ভারতের মোহম্মদ সিরাজের (৭৭/৫), অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে সফরকারী বোলার হিসেবে টেস্ট অভিষেক ৫ উইকেট শিকারের নজির রয়েছে।

blank
blank
blank
blank
blank
blank
blank

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.