ভারতীয় বাংলা চলচ্চিত্র জগতের অন্যতম খ্যাতনামা অভিনেতা হলেন মিঠুন চক্রবর্তী। তিনি শুধু অভিনেতা হিসেবেই মানুষের মনে জায়গা করে নেননি, তিনি সর্বদা অসহায় মানুষগুলোর দিকে সাহায্যর হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। অভিনয় জগতে সাফল্য লাভের পর তিনি বিয়ে করেন যোগিতা বালিকে এবং তাদের তিনটি ছেলে ও একটি কন্যা সন্তান ও আছে।

তবে অভিনেতার কন্যা সন্তান প্রাপ্তির পিছনের ঘটনা অভিনেতার প্রতি শ্রদ্ধা ও ভালোবাসাকে অনেকগুন বাড়িয়ে দেয়। বহু বছর আগে কলকাতার কয়েকজন পথচারী, এক ডাস্টবিনের পাশে একটি কন্যা সন্তানকে পড়ে থাকতে দেখতে পান এবং সেই মুহূর্তেই তারা পুলিশ এ খবর দেন এবং তারপর পুলিশ উদ্ধার করে শিশুটিকে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের দায়িত্বে তুলে দেয়। আর তার কিছুক্ষণের মধ্যেই এই খবরটি পেয়ে যান অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তী। আসলে কন্যা সন্তান পাওয়ার আশা বহুদিন ধরে ছিল অভিনেতার মনে আর তাই এই খবরটি পেয়ে তিনি সঙ্গে সঙ্গে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনটির সঙ্গে যোগাযোগ করেন এবং তারপর শিশুটিকে দত্তক নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন অভিনেতা ও তার স্ত্রী যোগিতা বালি।

শোনা যায় যে, শীর্ণকায়, রুগ্ন ওই শিশুটিকে সারা রাত কোলে নিয়েই বিভিন্ন আইনি সমস্যা মিটিয়েছিলেন অভিনেতা ও তার স্ত্রী। আর তারপর তাঁরা সমস্ত আইনি কাজকর্ম সেরে শিশুটিকে নিয়ে বাড়ি যান এবং অভিনেতা তার নিজের পরিচয় তার নাম রাখেন দিশানী চক্রবর্তী।

তবে সেই ছোট্ট মেয়েটি এখন অনেকটাই বড় হয়েছে গিয়েছে। শোনা যায় সিনেমা জগত নিয়ে খুবই আগ্রহী দিশানী আর তাই সে নিউ ইয়র্ক ফিল্ম অ্যাকাডেমি থেকে ফিল্ম স্টাডি নিয়ে পড়াশোনা করেছেন এবং নিজেকে প্রস্তুত করছেন। দিশানী এখন এডাল্ট তবে ছোট থেকে তার অভিনয় জগতের বিভিন্ন পরিচালক, প্রযোজকদের সঙ্গে বেশ আলাপ ও ভালো সম্পর্ক রয়েছে, হয়তো খুব শীঘ্রই অভিনয় জগতে অনেকই জোর টেক্কা দিতে চলেছেন তিনি।

দিশানী অভিনয় জগতে প্রবেশ করেছিলো তার বড়দা উশমে চক্রবর্তী পরিচালিত ২০১৭ সালে Holy Smoke নামে একটি ছবির মাধ্যমে। এর পর তিনি, বেশকিছু শর্টফিল্মেও অভিনয় করেছেন। যেমন ‘আন্ডারপাস’, ‘সাটল এশিয়ান ডেটিং উইথ পিবিএম’ এই ছবিগুলিতে তাকে অভিনয় করতে দেখা গিয়েছে। অভিনয় জগতের থাকতে গেলে পরিচিতির পাশাপাশি সোশ্যাল মিডিয়াতেও সক্রিয় থাকতে হবে তা খুব ভালো মত বুঝে গেছে দিশানী। জানা গিয়েছে, তার ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডলে তার ফ্যান ফলোইং আশি হাজারের বেশি। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁকে বেশ অ্যাক্টিভ থাকতে লক্ষ্য করা যায়। সোশ্যাল মিডিয়ায় এই বিষয়টি আপলোড হওয়ার পর তা তুমুল ভাইরাল হয়ে গিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.