নিখিল জৈনকে বিয়ে করেননি নুসরাত জাহান। নিজেই এ তথ্য জানিয়েছেন কলকাতার নায়িকা। এরপর থেকেই চলছে হৈ চৈ। সমালোচনায় ভাসছেন বসিরহাটের এই সংসদ সদস্য। অনেকেই তাকে মিথ্যেবাদী আখ্যা দিচ্ছেন।

বিজেপির এক নেতা সংসদে দাঁড়িয়ে নুসরাতের বিয়ে নিয়ে মিথ্যা বলার এক ভিডিও শেয়ার করেছেন টুইটারে। সে নিয়েও অনেক জল ঘোলা হয়েছে।

বিবৃতি জারি করে নিখিলের সঙ্গে সম্পর্ককে ‘লিভ-ইন’ নাম দেয়ার পর থেকে নুসরাতকে আক্রমণ করতে ব্যস্ত নেটিজেনদের একটা বড় অংশ। এবার সেই দলে নাম লেখালেন মীরাক্কেলের সঞ্চালক ও অভিনেতা মীর আফসার আলীও।

শুক্রবার তিনি একটি পোস্ট করেন ফেসবুকে। সেখানে তিনি লিখেছেন, ‘ইউরো কাপ ২০২০-তে আজ ইতালি আর একটা দেশের ম্যাচ। যে দেশে কেউ একজন বিয়ে করেছিলেন, বা করেননি।’

শুক্রবার মধ্যরাতে ইউরো কাপে মুখোমুখি হয়েছিল ইতালি ও তুরস্ক। সেই ম্যাচে ৩-০ গোলে জিতে যায় ইতালি। ইউরো কাপের প্রথম ম্যাচ দেখতে দেখতেই মীর এই পোস্টটি করেন। নাম না করে তিনি নুসরতকে নিয়েই মশকরা করেছেন বলে ধারণা নেটাগরিকদের। কারণ নুসরত ও নিখিলের ‘বিয়ে’ হয়েছিল তুরস্কে।

সে প্রসঙ্গেই নুসরাত বিবৃতি জারি করে জানিয়েছিলেন, ‘তুরস্কের বিবাহ আইন অনুসারে সেই অনুষ্ঠান অবৈধ। উপরন্তু দুই ভিন্ন ধর্মাবলম্বী মানুষের বিবাহের ক্ষেত্রে বিশেষ বিবাহ আইন অনুসারে বিয়ে করা উচিত। যা এ ক্ষেত্রে মানা হয়নি। ফলত এটা বিয়েই নয়। ভারতে সেই বিশেষ আইন না মানলে আইনি মতে এটি বিবাহ নয়, লিভ-ইন সম্পর্ক।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.