খুব দরিদ্র পরিবার থেকে উঠে এসেছেন রাজস্থান রয়্যালসের হয়ে আইপিএল খেলা চেতন সাকারিয়া। এই তরুণ পেসারের জীবনকাহিনি শুনলে চোখে জল আসে।

blank
blank
blank
blank
blank
blank
blank

করোনায় এবারের আইপিএল মাঝপথেই বন্ধ হয়ে গেছে। বাড়িতে ফিরেই কঠোর বাস্তবের মুখোমুখি হতে হলো চেতন সাকারিয়াকে। এই বাঁহাতি পেসারের বাবা কাঞ্জিভাই করোনায় আক্রান্ত হয়ে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি!

চেতনের বাবা একজন ট্রাক ড্রাইভার। তিন-তিনটি সড়ক দুর্ঘটনায় তার শরীরে তিনবার অস্ত্রোপচার হয়েছে। এখন তিনি আর বিছানা ছেড়ে উঠতে পারেন না। উপার্জনও করতে পারেন না।

এরপর চেতন তখন সৈয়দ মুশতাক আলী ট্রফি খেলছিলেন। এমন সময় তার এক বছরের ছোট ভাই আত্মহত্যা করে!

blank
blank
blank
blank
blank
blank
blank

পরিবারের দায়িত্ব এসে পড়ে চেতনের ওপর। অতঃপর এবারের আইপিএলে তাকে ১.২ কোটি রুপিতে কিনে নেয় রাজস্থান। এখন পর্যন্ত ৭ উইকেট নিয়ে সেই আস্থার দাম দিয়েছেন চেতন।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে চেতন বলেছেন, ‘কিছুদিন আগেই রাজস্থান রয়্যালসের থেকে টাকা পেয়ে গিয়েছিলাম। সেটা বাড়িতে পাঠিয়ে দিয়েছি। কঠিন পরিস্থিতিতে ওই টাকাটাই আমাদের সাহায্য করেছে। যারা আইপিএল বন্ধ করার পক্ষে সওয়াল করছিলেন, তাদের একহাত নিয়েছেন সাকারিয়া,

‘আমি পরিবারের একমাত্র উপার্জনক্ষম ব্যক্তি। ক্রিকেটই আমার আয়ের একমাত্র পথ। যদি এক মাস আইপিএল না চলত তাহলে আমি কী করতাম? কারণ, আমি দরিদ্র পরিবার থেকে উঠে এসেছি। ক্রিকেটই আমার কাছে একমাত্র সম্বল।’

blank
blank
blank
blank
blank
blank
blank

রাজকোট শহর থেকে ১৮০ কিলোমিটার দূরে ভারতেজ নামের এক অঞ্চলে চেতনের জন্ম। ছোটবেলায় মামার স্টেশনারি দোকানে কাজ করত চেতন। পাঁচ বছর আগেও তাদের বাসায় টিভি ছিল না।

বাবা অসুস্থ হওয়ার পর ক্রিকেট খেলার পাশাপাশি সংসারের সব ব্যয় একাই বহন করতেন চেতন। আইপিএল চুক্তিটা তাই তার পরিবারের কাছে বিশাল কিছু। চেতনের বুটজোড়াও ছিল কলকাতা নাইট রাইডার্সের সাবেক উইকেটকিপার শেলডন জ্যাকসনের দেওয়া।

blank
blank
blank
blank
blank
blank
blank

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.